রামজীবনপুর ; ২৬ এপ্রিল
দিদি এখন মোদী মালা জপ করছেন | আগে মা মাটি মাটি মানুষ বলত | এখন বলে শুধু মোদী | শুক্রবার আরামবাগ লোকসভা কেন্দ্রের বিজেপি প্রার্থী তপন রায়ের সমর্থনে রামজীবনপুরের দিপুর হাইস্কুল মাঠে সভা থেকে এভাবেই রাজ্যের মুখ্যমন্ত্রী মমতা ব্যানার্জিকে কটাক্ষ করলেন ত্রিপুরারা মুখ্যমন্ত্রী বিল্পব দেব | তাঁকে বলতে শোনা যায় দিদি এখন সকাল সন্ধ্যা মোদী মালা জপ করছেন কারন বাংলায় মোদী ঢুকে পড়েছে | মোদী আপনার মাথায় ঢুকে গেছে | আপনার ৪২ এ ৪২ আসন পূরণ হবে না | ছোট্ট রাজ্য ত্রিপুরায় ১ লক্ষ ৬৬ হাজার কৃষক কেন্দ্রের সুফল পেয়েছেন | এই রাজ্যে কোনো কৃষক পায়নি | এই রাজ্যে আয়ুষ্মান প্রকল্প সহ কেন্দ্রের কোনো প্রকল্প চালু না করতে দেওয়ার জন্য রাজ্য সরকার ও মুখ্যমন্ত্রীর কঠোর সমালোচনা করেন তিনি |

রাজ্যে চলছে সিণ্ডিকেট রাজ। ক্যাডার রাজ ও ভাইপো রাজ চলছে পশ্চিমবঙ্গ জুড়ে। শুক্রবার অারামবাগ লোকসভা কেন্দ্রের নির্বাচনী জনসভায় রামজীবনপুরের দেপুর স্কুল মাঠে এক সভায় যোগ দিয়ে এভাবেই রাজ্যের শাসক দল তৃণমূল কংগ্রেসকে নিয়ে তীব্র বিষোদ্গার করলেন বিজেপি নেতা তথা ত্রিপুরার মুখ্যমন্ত্রী বিপ্লব দেব। তিনি তাঁর বক্তব্যে আগাগোড়া পশ্চিমবঙ্গের সরকারকে তুলোধোনা করেন। তিনি বলেন, এই রাজ্যের সরকার কেন্দ্রের আয়ুষ্মান ভারত প্রকল্পের পাশাপাশি কৃষকদের ছ’হাজার টাকা ভাতা প্রকল্প চালু করতে দিচ্ছে না। কারণ কেন্দ্রের প্রকল্পগুলির সুবিধা বাংলার মানুষ পেলে তৃণমূলের পার্টি অফিসে তো কেউ যাবেই না। একই সঙ্গে তিনি বলেন নরেন্দ্র মোদিই একমাত্র প্রধানমন্ত্রী যিনি উজ্জ্বলা যোজনার মাধ্যমে প্রতিটি ভারতবাসীর রান্না ঘর পর্যন্ত পৌঁছে গেছেন। এর আগে কোন প্রধানমন্ত্রী দেশবাসীর রান্না ঘরে পৌঁছাতে পারেন নি বলেই তিনি দাবি করেন। ২০২১ সালে এ রাজ্যের তৃণমূল সরকার উৎখাত হবে দাবি করে বিপ্লব দেব বলেন, তাঁর রাজ্য ত্রিপুরায় ২০১৮ সালে ২৫ বছরের বাম সরকারকে উৎখাত করে বিজেপি ক্ষমতায় এসেছে। আর এরাজ্যেও বিজেপি ক্ষমতায় আসা সময়ের অপেক্ষা মাত্র।
ভারতীয় জনতা পার্টিতে পরিবার দেখা হয় না | এবারের নির্বাচন বাংলার মুক্তির নির্বাচন | মোদী নতুন ভারত দেবে আর নতুন বাংলা দেবে |

বাংলার মাটি রাজনীতির মাটি। স্বাধীনতার আগে হোক কিম্বা পরে এই মাটি প্রতিবাদী, সংগ্রামী নেতার জন্ম দিয়েছে। এই মাটি সারা ভারতবর্ষকে শেখায়। কিন্তু দুর্ভাগ্যের বিষয় এই মাটিতেই মমতা ব্যানার্জ্জীর মতো নির্দয়ী শাসকের জন্ম হয়েছে । তিনি বলেন, মমতা ব্যানার্জী মা-মাটি-মানুষের কথা বলে ক্ষমতায় এসেছিলেন। এখন তিনি আর সেকথা বলেন না। একই সঙ্গে রাজ্যের মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়কে দিদি সম্বোধন করে তাঁর উদ্দেশ্যে বলেন, আপনি নিজেকে জিজ্ঞাসা করুন, আপনি বাংলাকে কি দিয়েছেন। সাত শাসনকালে মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় সারা বাংলাকে শেষ করে দিয়েছেন । অভিযোগ শানিয়ে বিপ্লব দেব বলেন, এই লোকসভা ভোটেই প্রমাণ হবে বাংলার মানুষ প্রতিবাদ করতে জানে। এবার ইভিএমে পদ্ম ফুল চিহ্নেই মানুষ ভোট দেওয়ার পাশাপাশি দু’বছরের মধ্যেই এরাজ্যের তৃণমূল সরকারের পতন হবে। তৃণমূল ১ বছরের মধ্যে ক্ষমতা হারাবে কেউ থাকবেনা বলে আত্মবিশ্বাসী ত্রিপুরার মুখ্যমন্ত্রী বিপ্লব দেব।

প্রশাসনের সম্মতি না মেলায় শুক্রবার বিষ্ণুপুরের কাঁকিল্যায় তাঁর নির্বাচনী সভা বাতিল কর দেওয়া বিষয়ে বলেন ‘অতিথি দেবঃ ভবঃ’ সংস্কৃত শ্লোক আওড়ে বিপ্লব দেব বলেন, এই ঘটনা অগণতান্ত্রিকতার লক্ষণ। অন্য রাজ্যের মুখ্যমন্ত্রীকে পশ্চিমবঙ্গে সভা করতে দেওয়া হচ্ছে না। সুর চড়িয়ে মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়কে আক্রমণ করে তিনি বলেন, ভারতীয় মহিলাদের মমত্ববোধ থাকা দরকার। আপনি যখন জন্মেছিলেন আপনার মা সেই আশা করে আপনার এই নাম রেখেছিলেন। আপনি নির্দয়ী হয়ে উঠেছেন। সারা বাংলাকে গুণ্ডারাজে পরিণত করেছেন । তবে আর বেশি দিন নয়। পদ্মঝড়ে এবার কুপোকাত হবে বাংলা বলেও দাবি করেন বিপ্লব দেব।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here