মেদিনীপুর শহরের একটি বেসরকারি হাসপাতালে ভাঙচুর করল এক রোগীর আত্মীয়রা । মেদিনীপুর শহরের sekhpurar বাসিন্দা অভিজিৎ সরকার পেটে ব্যথা নিয়ে গতকাল রাত্রে এই বেসরকারি হাসপাতালে ভর্তি হয়। দুপুরের পর রোগীর অবস্থা খারাপের দিকে গেলে হাসপাতাল কর্তৃপক্ষ রোগীর আত্মীয়দের অনুমতি নিয়ে স্থানান্তর করার কথা বলেন। কথামতো স্থানান্তরিত হচ্ছিল রোগী কিন্তু হঠাৎই রোগী মারা গেছে এই গুজবের হাসপাতালে ভাঙচুর শুরু হয়ে যায়।রোগীর বাড়ির আত্মীয়দের সহ একদল উন্মত্ত জনতা হাসপাতালে এমারজেন্সি বিভাগ ফার্মেসী বিভাগ সহ বেশ কয়েকটি বিভাগে ভেঙে তছনছ করে দেয়। ভাঙচুর করা হয় আসবাবপত্র পাশাপাশি হাসপাতালে নামি দামি জিনিসপত্র। ভেঙে ফেলা হয় বেশ কয়েকটি কম্পিউটার। উন্মুক্ত জনতার হাত থেকে রেহাই পায়নি হাসপাতালে কর্মীরাও। একজন সিনিয়র নার্স কেউ শারিরীক ভাবে হেনস্থা করা হয় বলেও অভিযোগ হাসপাতাল কর্তৃপক্ষের।এই ভাঙচুরের ফলে হাসপাতালে সাময়িকভাবে চিকিৎসা পরিষেবা ব্যাহত হবে বলে দাবি হাসপাতাল কর্তৃপক্ষের।এমনকি হাসপাতালে ফার্মাসির ক্যাশ কাউন্টার থেকেও টাকা ও লুট করে নিয়ে গেছে বলে দাবি কর্তৃপক্ষের।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here