ঘাটাল নিউজ ওয়েব ডেস্ক, ১৮ ই সেপ্টেম্বর : ফেসবুক জায়গা হয়েছিল মানুষের চরিত্রহননের ও খুব সহজে কালিমালিপ্ত করে বদনাম পাওয়ার। সাইবার ক্রাইমের এই ঘটনাগুলি সম্পর্কে মানুষ কোনো আইনি ব্যবস্থা নিতে ছিলে অক্ষম। যাইহোক গ্রামবাংলাকে পথ দেখালো শালবনী থানা। মাননীয় মুখ্যমন্ত্রী মমতা ব্যানার্জী ও ওড়িশার মুখ্যমন্ত্রী নবীন পট্টনায়েকের কুৎসিত ছবি, অশালীন ভাবে নিজের দেওয়ালে প্রদর্শন করছিলেন, শালবনীর শৌলা গ্রামের বাবুয়া ঘোষ। যিনি রাজনীতিতে বিজেপির সাথে যুক্ত এছাড়াও তিনি মমতা ব্যানার্জীর অবিবাহিত জীবন নিয়েও মন্তব্য করেন। পুলিশ স্পেসিফিক এফআইআর পাওয়ার পর তদন্তে নামে এবং গ্রেফতার করে মোবাইল টি সিজ করা হয়। সূত্রের খবর বিভিন্ন “ফেক প্রোফাইল”, যেগুলি অশালীন ছবি প্রদর্শন ও মন্তব্য করে, সেগুলি সম্পর্কেও তথ্য নেওয়ার ও তাদের চিহ্নিত করে ব্যবস্থা নেওয়ার পদ্ধতিও চলছে।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here